,

ভেড়ামারায় নিখোঁজের একদিন পর স্কুল ছাত্রের মরদেহ উদ্ধার

কুষ্টিয়া-  কুষ্টিয়ার ভেড়ামারায় নিখোঁজের একদিন পর আসিফ হোসেন নামে সপ্তম শ্রেনীর এক স্কুল ছাত্রের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ।
সোমবার সন্ধ্যায় ভেড়ামারা উপজেলার ধরমপুর গ্রামের প্রতিবেশী মিশুক আলীর বসত ঘরের একটি বাস্কের মধ্য থেকে ওই স্কুলের ছাত্রের মরদেহ উদ্ধার করা হয়। আসিফ ভেড়ামারা উপজেলার ধরমপুর গ্রামের কুতুব উদ্দিনের ছেলে।
পুলিশ ও আসিফের পরিবার সূত্র জানায়, রোববার সকাল ১১টায় বাড়ী থেকে বের হয় আসিফ। কিন্তু বিকেল পেরিয়ে সন্ধ্যা হলেও বাড়িতে আসেনি না আসায় দুশ্চিন্তায় পড়ে পরিবারের সদস্যরা। অনেক খোঁজাখুঁজি করার পর আসিফকে না পেয়ে পরিবারের সদস্যরা বিষয়টি ভেড়ামারা থানায় অবহিত করেন। ঘটনার দিনই আসিফের বাবা কুতুব উদ্দিনের মুঠোফোনে ৫০ হাজার টাকা দাবি করে অজ্ঞাত ব্যক্তি। এরপর কুুষ্টিয়ার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ভেড়ামারা সার্কেল) নূর-ই-আলম সিদ্দিকী মোবাইলফোনের বিভিন্ন সূত্র ও তথ্যের ভিত্তিতে মিশুক আলীর বসত ঘরে কাঠের বাক্রোর মধ্যে থেকে আসিফের মরদেহ উদ্ধার করে।
কুষ্টিয়ার পুলিশ সুপার তানভীর আরাফাত জানান, আসিফকে গলায় প্লাস্টিকের রশি দিয়ে শ্বাসরোধ করে হত্যা করে ঘরের ভেতর কাঠের বাক্সে লুকিয়ে রাখা হয়েছিল। টেকনোলোজি ব্যবহার করে তার মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। ঘাতক মিশুক নামের ওই ব্যক্তিকে ধরতে পুলিশ ব্যাপক অভিযান চালাচ্ছে।

 


     এই বিভাগের আরো খবর